সিডনী রবিবার, ৩রা মার্চ ২০২৪, ২০শে ফাল্গুন ১৪৩০


অস্ট্রেলিয়ায় বালুর নিচে চাপা পড়ার পর হাসপাতালে যুবক


প্রকাশিত:
৫ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৫:৫৭

আপডেট:
৩ মার্চ ২০২৪ ১৪:১৩


একটি জনপ্রিয় সৈকতে বালুর নিচে চাপা পড়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ান যুবক জোশ টেলর (২৫)। উদ্ধারের পর তিনি এখন বেঁচে থাকতে হাসপাতালে লড়াই করছেন। ঘটনাটি ঘটেছে ব্রিসবেনের উত্তরে ব্রিবি দ্বীপে। এনডিটিভির এক প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে।


প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সৈকতে টেলর একটি গর্তে পড়ে যান এবং সেটি বালুতে ঢেকে যাওয়ায় তিনি চাপা পড়েন। তাকে সহায়তা করতে চিকিৎসক এবং উদ্ধারকারী হেলিকপ্টার ডাকা হয়েছিল।

নাথান নামের এক প্রত্যক্ষদর্শী ৭নিউজকে বলেছেন, টেলর হোঁচট খেয়ে একটি গর্তে পড়ে গিয়েছিলেন, যেটি শূকর রান্নার জন্য খনন করা হয়েছিল। তিনি গর্তের খুব গভীরে চলে গিয়েছিলেন।


তাকে গর্ত থেকে বের করার অপরিসীম প্রচেষ্টা হয়েছে।
নাথান জানান, তিনি সৈকত থেকে চলে যাচ্ছিলেন। এ সময় একদল পুরুষ তাদের বন্ধুকে বালুর নিচ থেকে উদ্ধার করতে সাহায্যের জন্য চিৎকার করে দৌড়াচ্ছিল। তিনি যখন ঘটনাস্থলে পৌঁছন, টেলরের বন্ধুরা এবং পরিবারের সদস্যরা তাকে মুক্ত করার জন্য মরিয়া হয়ে খনন শুরু করে।


টেলরকে যখন টেনে বের করা হয় তখন তার কোনো নাড়ি ছিল না এবং জরুরি চিকিৎসকরা আসার আগে তাকে দীর্ঘ সময় সিপিআর দেওয়া হয়। টেলরকে আরো চিকিৎসার জন্য গুরুতর অবস্থায় প্রিন্সেস আলেকজান্দ্রা হাসপাতালে উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। জোর করে টেনে বালুর নিচ থেকে বের করার কারণে টেলর গুরুতর আঘাত পেয়েছেন।

টেলরের নাড়ি ফিরে আসতে প্রায় ৪৫ মিনিট সময় লেগেছিল। চিকিৎসকরা এখন তার জীবন বাঁচাতে কাজ করছেন।


বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Developed with by
Top