সিডনী রবিবার, ৩রা মার্চ ২০২৪, ২০শে ফাল্গুন ১৪৩০


সিডনিতে লাল গালিচা সংবর্ধনা পেলেন ইমরুল কায়েস


প্রকাশিত:
২৩ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৩:৫৪

আপডেট:
২৩ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৩:৫৭

 

অস্ট্রেলিয়া জুড়ে ক্রিকেটের উন্মাদনা বাড়িয়ে দিতে কাজ করছে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ কমিউনিটি ক্রিকেট। এবছরের শুরুতে এই প্লাটফর্মে যুক্ত হয় ক্রিকেটার মোহাম্মদ আশরাফুল, এবার হলেন জাতীয় দলের আরেক চেনামুখ ইমরুল কায়েস। সিডনিতে তাকে ঘটা করে বরণ করে নিলেন আয়োজকরা, দিলেন লাল গালিচা সংবর্ধনা।

১০ই ডিসেম্বর, ররিবার সন্ধ্যায় সিডনির মাঠে বাংলাদেশের হয়ে খেলছেন ইমরুল, বল ব্যাটের অংক কষছেন সেই সাথে মাথায় আছে আজ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে হাজির হতে হবে তাকে। বেলা গড়াতেই ফোন করে জানিয়ে দিলেন খেলা শেষ করতে দেরী হতে পারে, তবে অনুষ্ঠানে আসবেন তিনি। কথা রাখলেন, দেখালেন পেশাদারিত্ব। হাজির হলেন সিডনির বাংলাদেশী অধ্যুষিত লাকেম্বার গ্রামীণ রেস্তোরায়। ররিবার সন্ধ্যায় এ আয়োজনটি করে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ কমিউনিটি ক্রিকেটের নিউ সাউথ ওয়ালেস রাজ্যের আয়োজক কমিটি।

ইমরুলের উপস্থিতি মুগ্ধকরে অপেক্ষামান সুধীদের। কথায় আছে অপেক্ষার ফল মিষ্টি, যেন তাই হলো। শত ক্লান্তি পেছনে রেখে এ আয়োজনে ইমরুলের পা রাখা প্রমাণ করে তার কমিটমেন্ট এর জায়গা বেশ দৃঢ়। শুরুতেই ইমরুলের জন্য বিছিয়ে দেওয়া হয় রেড কার্পেট। এই প্রথম ক্রিকেট তথা কোনা বাংলাদেশী তারকাকে লাল গালিচায় সংবর্ধনায় দিতে দেখা যায় অস্ট্রেলিয়ায়।

প্রধান অতিথি ইমরুলের পাশে আসন গ্রহণ করেন বাংলাদেশ জাতীয় নারী ক্রিকেট দলের সাবেক খেলোয়ার সাবিনা সুলতানা। ইমরুল কায়েসকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন স্থানীয় কাউন্সিলর সাজেদা আক্তার।

তারপর শুরু হয় বড় পর্দায় প্লাটফর্মটির ওপর বিশেষ প্রতিবেদন। এ সময় বিডিও বার্তায় ইমরুল কায়েস ও এই কমিউনিটি ক্রিকেটের কার্যক্রমকে অভিনন্দন জানান বাংলাদেশ জাতীয় দলের কোচ সালাহ উদ্দিন, ক্রিকেটার জুনায়য়েদ সিদ্দিকী, শরিফুল ইসলাম, শরিফুল্লাাহ, মো: রবিন, সিনিয়র স্পোর্টস জার্নালিস্ট আপন তারিক, গীতিকার ও লেখক অনুরূপ আইচ, বাংলাভিশনের চিফ রিপোর্টার সুজন মাহমুদ, ডিবিসি নিউজ এর সাংবাদিক ফখরুল ইসলাম প্রমুখ I

ইমরুল কায়েস বলেন , ‘অস্ট্রেলিয়ায় ক্রিকেটের এতো আয়োজন আমাকে মুগ্ধ করেছে। আমাকে সন্মনিত করার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ ক্রিকেটের সঙ্গে আছি সবসময়।’

নির্জন মোশাররফ বলেন, 'বিশ্ব আসরে ক্রিকেট যে উন্মাদনা নিয়ে এসেছে আমরাও তার অংশীদার হতে চাই। তাই প্রয়াস চলছে অস্ট্রেলিয়া জুড়ে তৃণমূল ক্রিকেটে রঙ লাগাতে ও বাংলাদেশীদের একসুতোঁয় গেঁথে ছড়িয়ে দিতে চিরচেনা আনন্দ । আপনাদের শুভ কামনা এই আয়োজনকে সমৃদ্ধ করতে পারে, পারে ত্রিকেটার তৈরীর নেপথ্যে ভূমিকা রাখতে পারে। সেই সাথে তৈরি হতে পারে অস্ট্রেলিয়া জুড়ে বাংলা ক্রিকেটের নতুন উপাখ্যান।

অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ কমিউনিটি ক্রিকেট এর এনএসডব্লিউ শাখার নেতৃবৃন্দদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ডাক্তার ফাইজুর রেজা ইমন, লিটন বাউল, ডাক্তার ইকবাল হোসেন , ডাক্তার সাজেদুর রহমান শাওন, আরিফুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আলম, মনিরুজ্জামান শিপলু, দিদার হোসেন, জাকির আলম লেলিন, মুহায়মান খান মিশু, তাসবির হাসান অর্ক, তিশা তানিয়া, নাজিয়া মাহমুদ, মৌসুমী সাহা, মৌসুমী মন্ডল, শিকদার আহমেদ, ইফতি ওয়াসেত সহ আরো অনেক বিশিষ্ট ব্যাক্তিবর্গ।



সিডনী থেকে নেতৃত্ব দেন কমিটির চালকের আসনে থাকা তালাত মাহমুদ ও সৈয়দ মুর্শেদ বাপ্পি I সার্বিক তত্বাবধনে ছিলেন প্রধান সমন্বয়ক শাহে জামান টিটু এবং প্রতিষ্ঠাতা ও সমন্বয়ক নির্জন মোশাররফ।


বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Developed with by
Top