সিডনী শুক্রবার, ১৯শে জুলাই ২০২৪, ৪ঠা শ্রাবণ ১৪৩১


অ্যাসাঞ্জকে চায় অস্ট্রেলিয়া: প্রধানমন্ত্রী আলবানিজ


প্রকাশিত:
২৫ জুন ২০২৪ ১৭:৪২

আপডেট:
২৫ জুন ২০২৪ ২৩:৩৫

 

উইকিলিকসের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব দেশে ফিরিয়ে আনতে চান অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী অ্যান্থনি আলবানিজ। অ্যাসাঞ্জের কারামুক্তির খবর শোনার পর, মঙ্গলবার (২৫ জুন) ক্যানবেরায় পার্লামেন্ট হাউজে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা তাকে অস্ট্রেলিয়ায় ফিরিয়ে আনতে চাই। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

অস্ট্রেলিয়ায় জন্মগ্রহণ করা ৫২ বছর বয়সী অ্যাসাঞ্জ সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তার কর্মকাণ্ড সম্পর্কে লোকদের মতামত যাই হোক না কেন, মামলাটি খুব দীর্ঘ সময় ধরে চালিয়ে যাওয়া হয়েছে।


তার এই ক্রমাগত কারাবাসের ফলে লাভ কিছুই নেই বলেও মন্তব্য করেছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী।


মার্কিন প্রতিরক্ষা-সংক্রান্ত তথ্য ফাঁসের অভিযোগে দোষ স্বীকার করতে রাজি হয়েছেন অ্যাসাঞ্জ। এর বিনিময়ে তাকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে। সোমবার বেলমার্শের কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছেন তিনি।

২০১০ সালে ইরাক ও আফগানিস্তানে যুদ্ধের বিষয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গোপন নথি ফাঁস করে বিশ্বজুড়ে ব্যাপক হৈচৈ ফেলে দেয় জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ প্রতিষ্ঠিত ওয়েবসাইট উইকিলিকস।

এরপর অ্যাসাঞ্জের বিরুদ্ধে প্রায় ১৮টি মামলা দায়ের করে যুক্তরাষ্ট্র, শুরু হয় গ্রেফতার তৎপরতা। গ্রেফতার এড়াতে এক পর্যায়ে লন্ডনের ইকুয়েডর দূতাবাসে আশ্রয়ে নেন তিনি। সেখানেই প্রায় সাত বছর কাটিয়ে দেন। ২০১৯ সালে গ্রেফতার হওয়ার পর থেকে গত পাঁচ বছর ধরে লন্ডনের বেলমার্শ কারাগারে বন্দী ছিলেন অ্যাসাঞ্জ।

সংবাদমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে, জিনস ও নীল শার্ট পরিহিত অ্যাসাঞ্জকে লন্ডনের স্ট্যানস্টেড বিমানবন্দরে দেখা গেছে। বুধবার তার যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল সরকারের তত্ত্বাবধানে থাকা নর্দান মারিয়ানা আইল্যান্ডসে পৌঁছানোর কথা। এরপর অস্ট্রেলিয়ায় ফিরবেন অ্যাসাঞ্জ।


বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Developed with by
Top