সিডনী সোমবার, ২১শে জুন ২০২১, ৬ই আষাঢ় ১৪২৮


বাসভূমির পরিচালনায় এবং প্রভাত ফেরীর প্রযোজনায় নাটক ‘প্রবাসে প্রতিদিন’


প্রকাশিত:
২৫ মে ২০২১ ১৩:৪০

আপডেট:
২১ জুন ২০২১ ০৩:০৫

ছবিঃ শামীমা সুমি এবং শ্রাবন্তী কাজী

 

নিরাপদ জীবন ও উন্নত জীবিকার আশায় মানুষ প্রবাসে পাড়ি জমায়। অচেনা অজানা দেশে গড়ে তুলে নতুন এক বাসভূমি। এই জীবনসংগ্রামের উত্থানপতনে প্রতিটি প্রবাসজীবনই ভরে উঠে নানা আনন্দ, কষ্ট, দুঃখ, প্রাপ্তি, হতাশা কিংবা সন্তুষ্টির বৈচিত্র্যময় অভিজ্ঞতায়। সবার চোখে একটাই স্বপ্ন; অস্ট্রেলিয়ায়তে স্থায়ীভাবে থাকা এবং একটা ভাল কাজ করা। স্বপ্নের পিছনে ছুটতে ছুটতে অনেকেই হন প্রতারিত এবং ব্যর্থ, অনেকেই সফল হন। আবার কেউ কেউ হয়ত অর্থনৈতিক ভাবে সফল হন, কিন্তু বুকের ভেতর থেকে যায় এক ধরনের অতৃপ্তি এবং হাহাকার।

প্রবাসীদের এই আনন্দ, ভালবাসা, দুঃখ, কষ্ট, পাওয়া ও না পাওয়ার নানা ঘটনাকে ঘিরে নির্মিত হচ্ছে ধারবাহিক নাটক ‘প্রবাসে প্রতিদিন’। রচনা করেছেন অস্ট্রেলিয়ার স্বনামধন্য লেখক, পরিচালক ও বাসভূমি টেলিভিশনের কর্ণধার আকিদুল ইসলাম। নাটকটি প্রযোজনা ও পরিবেশনায় আছেন প্রভাত ফেরী মাল্টিমিডিয়ার কর্নধার এবং অস্ট্রেলেশিয়ান ইন্টারন্যশনাল একাডেমির সিইও  শ্রাবন্তী কাজী আশরাফী।

সম্প্রতি ‘প্রবাসে প্রতিদিন’ নাটকের শুটিং করার প্রস্তুতি হিসেবে লেখক, পরিচালক, প্রযোজকদের একটি সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে বাসভূমি টেলিভিশেনর পরিচালক শামীমা সুমি বলেন, প্রবাসীদের বাস্তব জীবনের গল্প নিয়েই এবার তৈরী হচ্ছে নতুন এই ধারাবাহিক নাটকটি। এই নাটকে আমাদের এখানে প্রতিদিনের ঘটে যাওয়া ঘটনাকে তুলে আনা হবে।

বাসভূমি’র কর্নধার আকিদুল ইসলাম এ সময় বলেন, আমার লেখা এবং পরিচালনায় অনেকগুলো নাটক নির্মিত ও প্রচারিত হয়েছে যা দেশে বিদেশে দর্শক নন্দিত হয়েছে। এবার প্রথমবারের মতো আমরা প্রভাত ফেরী মাল্টিমিডিয়ার সাথে যৌথ উদ্যোগে ধারাবাহিক একটি নাটক করতে যাচ্ছি। আমি মনে করি, এই নাটক অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশী কমিউনিটির জন্য বিনোদন জগতের একটি মাইলফলক হয়ে থাকবে।

প্রভাত ফেরী মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার শ্রাবন্তী কাজী আশরাফী বলেন, আকিদুল ভাইয়ের লেখা গল্প সবসময়েই আমি পড়ি, ভাল লাগে। কয়েকমাস আগে যখন তিনি আমাকে এই নতুন নাটকের স্ক্রিপ্ট পড়তে দেন, তখনই এই থিম এবং ঘটনাগুলো আমার মনে দাগ কেটে যায়। কিন্তু ব্যবসায়িক ব্যস্ততার কারণে বেশ কিছুদিন সময় লেগে গেলো আমাদের প্রযোজনা করার সিদ্ধান্তটি নিতে।

শ্রাবন্তী আরো বলেন, আমি ছোটবেলাই থেকেই নাটক, গান ও লেখালোখিতে ভরপুর একটি সাংস্কৃতিক পরিবেশে বড় হয়েছি। আশি ও নব্বই দশকের বাংলাদেশে্র খ্যাতিমান অভিনেতা, পরিচালক ও নাট্যব্যক্তিত্বরা আমাদের বাসায় আসতেন, আমার বাবার সাথে আড্ডা দিতেন। তাদেরকে দেখে দেখে এবং তাদের কথা শুনে শুনেই আমি বড় হয়ে উঠেছি। সাহিত্য ও সংস্কৃতি আমার রক্তে মিশে আছে। আমি বিশ্বাস করি, নাটক হচ্ছে আমাদের সমাজের আয়না। আমাদের ভাললাগা, ভালবাসা, আশা ও ভরসার চিত্রগুলো সঠিকভাবে নাটকেই তুলে ধরা সম্ভব। 

উল্লেখ্য যে, শ্রাবন্তী কাজীর বাবা কাজী জাকির হাসান ছিলেন স্বাধীনতা পদক প্রাপ্ত একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং বাংলাদশের বিশিষ্ট নাট্য ব্যক্তিত্ব। তিনি সাড়ে চারশত এর উপর নাটক লিখেছেন এবং পরিচালনা করেছেন। নাট্যতত্ত্বের উপর তাঁর লেখা বই বাংলাদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ্যপুস্তক হিসাবে পড়ানো হয়।

আকিদুল ইসলামের পরিচালনায় শুটিং এর জন্য প্রস্তুত এই নির্মিতব্য নাটক ‘প্রবাসে প্রতিদিন’ এর বিভিন্ন ভূমিকায় অভিনয় করবেন শামীমা সুমি এবং শ্রাবন্তী কাজীসহ স্থানীয় সংস্কৃতিমনা ও সুপরিচিত অভিনেতা অভিনেত্রীরা। বাংলাদেশের দর্শকরা এবং পৃথিবীর অন্যান্য দেশে বসবাস করা প্রবাসী বাংলাদেশী দর্শকরা নাটকটিতে দেখতে পাবেন অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশী প্রবাসীদের জীবনযাত্রার নানা খুঁটিনাটি দিক এবং এই দেশের নানা স্থানের দৃশ্য। নাটকটি অস্ট্রেলিয়া সহ বাংলাদেশের কয়েকটি টেলিভিশন চ্যানেলে সম্প্রচার করা হবে।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top