সিডনী রবিবার, ৭ই আগস্ট ২০২২, ২৩শে শ্রাবণ ১৪২৯


মন্ত্রিসভায় নতুন আটজনকে নিলেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা


প্রকাশিত:
৪ আগস্ট ২০২২ ১৪:২০

আপডেট:
৭ আগস্ট ২০২২ ২২:২৬

 

মন্ত্রিসভায় নতুন আটজনকে নিলেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নতুন করে পূর্ণমন্ত্রী হলেন বাবুল সুপ্রিয় সহ পাঁচজন।

পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে মন্ত্রিসভা থেকে সরিয়ে দেয়ার পর বেশি দেরি করলেন না মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দ্রুত মন্ত্রিসভার রদবদল করে ফেললেন। দুই প্রয়াত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় ও সাধন পান্ডের শূন্যপদও পূরণ করলেন তিনি। মমতা বলেছেন, ছোট রদবদল করা হলো।

পূর্ণমন্ত্রী করা হয়েছে বাবুল সুপ্রিয়, পার্থ ভৌমিক, উদয়ন গুহ, প্রদীপ মজুমদার, স্নেহাশিস চক্রবর্তীকে। বীরবাহা হাঁসদা আগে প্রতিমন্ত্রী ছিলেন। তাকে স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিমন্ত্রী করা হয়েছে। বিপ্লব রায়চৈধুরীকেও স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিমন্ত্রী করা হয়েছে। তাজমুল হোসেন ও সত্যজিৎ বর্মনকে প্রতিমন্ত্রী করা হলো।

চারজনকে মন্ত্রিসভা থেকে বাদ দিতে হবে মমতাকে। কারণ, মোট ৪৪ জনকেই মন্ত্রী করতে পারেন তিনি। মোট চারটি পদ খালি ছিল। নতুন আটজন নতুন মন্ত্রী নেয়া হয়েছে। আর বীরবাহা হাঁসদা আগে প্রতিমন্ত্রী ছিলেন, এখন স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিমন্ত্রী হলেন। ফলে মমতাকে চারজনকে বাদ দিতে হবে।

বাবুল সুপ্রিয়র ক্ষেত্রে একটা বৃত্ত সম্পূর্ণ হলো। তিনি আগে আসানসোল থেকে সাংসদ ছিলেন। জেতার পর নরেন্দ্র মোদী মন্ত্রিসভায় প্রতিমন্ত্রী হন। কিন্তু মোদী মন্ত্রিসভা থেকে বাদ পড়ার পর তিনি বিজেপি ছেড়ে দেন। সাংসদ পদ থেকেও ইস্তফা দেন। পরে বাবুল তৃণমূলে যোগ দেন, বিধায়ক নির্বাচিত হন। এবার তিনি পূর্ণমন্ত্রী হলেন। বিজেপি ছাড়ার এক বছর পর রাজ্যে মন্ত্রী হলেন বাবুল।

উত্তরবঙ্গ থেকে পূর্ণমন্ত্রী হয়েছেন উদয়ন গুহ। মন্ত্রী হওয়ার পর তিনি বলেছেন, পশ্চিমবঙ্গের ইতিহাসে প্রথম বাবা ও ছেলে মন্ত্রী হলেন এবং সেটাও দুই দলের সরকারে। উদয়নের বাবা কমল গুহ দীর্ঘদিন ধরে বামফ্রন্ট সরকারের মন্ত্রী ছিলেন। উদয়ন তৃণমূল মন্ত্রিসভায় এলেন।

এদিন একমাত্র বীরবাহা হাঁসদা অলচিকি ভাষায় শপথ নিলেন। বাকিরা বাংলায় নিয়েছেন। দেশের রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মুর মতো বীরবাহাও সাঁওতাল।

নতুন মন্ত্রীদের এবার দপ্তরবন্টন করবেন মমতা। তখন বোঝা যাবে, পুরনো মন্ত্রীদের মধ্যে কারো মন্ত্রক বদল করা হয়েছে কি না। তবে এদিনের রদবদল থেকে একটা কথা স্পষ্ট, এবার অপেক্ষাকৃত তরুণদের বেশি গুরুত্ব দিয়েছেন মমতা। উদয়ন গুহ সহ দুইজন প্রবীণ নেতা। বাকিরা সকলেই তরুণ। নতুন মন্ত্রী হওয়া পার্থ ভৌমিক বলেছেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় তিন প্রজন্মের নেতাদের তৈরি করেছেন এবং করছেন।


বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top