সিডনী সোমবার, ৬ই ডিসেম্বর ২০২১, ২২শে অগ্রহায়ণ ১৪২৮


হেমন্তের হ্যামলক : মালিহা পারভীন


প্রকাশিত:
১৮ নভেম্বর ২০২১ ১৫:৫৫

আপডেট:
৬ ডিসেম্বর ২০২১ ২৩:২১

 

হেমন্তের হাত ধ'রে কবোষ্ণ বিকেল এলে
মুখস্ত করি ধারাপাত যাপিত জীবনের।
নিঃশব্দ মিহিন শিশিরে যখন সন্ধ্যা নামে,
রাতের বারান্দায় মেলি দুঃখের সফেদ চাদর।

হেমন্ত এলেই ছেলেবেলা ভিজে শিশিরের জলে,
জাফরান প্রেম জমে শিউলির লাজুক বোঁটায়,
হেমন্ত এলে শুন্যতার উঠোনে লুকুচুরি সরল স্মৃতি,
ক্ষনিক আয়ুর সাথে শর্তহীন চুক্তির সোনালী শৈশব।

হেমন্ত এলেই পলিজ মাটির ঘ্রাণ নিয়ে বলি
আহা কি সুন্দর বেঁচে থাকা!
সোনালী শস্যের বুকে পা ফেলে বলি
আহা কি সুন্দর এ জীবন!!

হেমন্ত এলেই নিজের মায়াবী বুকে রাখি নিজেরই হাত,
অলীক ঠিকানায় উড়াই অচিন ঘুড়ি,
হেমন্ত এলেই ছুঁই বিরহ হ্যামলক অমৃত জ্ঞানে
ফেরি করি জীবনের নিঃশব্দ কোলাহলে।

 

ডা: মালিহা পারভীন
কবি ও কথা সাহিত্যিক

সেগুনবাগিচা, ঢাকা

 

এই লেখকের অন্যান্য লেখা



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top