সিডনী বুধবার, ২১শে অক্টোবর ২০২০, ৬ই কার্তিক ১৪২৭

করোনা পরবর্তীতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ প্রবৃদ্ধি হবে বাংলাদেশের: আইএমএফ


প্রকাশিত:
১৪ অক্টোবর ২০২০ ১৬:৩৮

আপডেট:
১৪ অক্টোবর ২০২০ ১৬:৫৫

 

প্রভাত ফেরী: করোনাভাইরাস সংক্রমণের প্রভাবে এ বছর পৃথিবীর বেশিরভাগ দেশের অর্থনীতিতে প্রবৃদ্ধি না হয়ে সংকোচন হবে। প্রবৃদ্ধি হবে এমন হাতেগোনা কয়েকটি দেশের মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ। শুধু তাই নয়, ২০২০ সালে বিশ্বের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ প্রবৃদ্ধি হবে বাংলাদেশের। এই পূর্বাভাস আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল বা আইএমএফের।

আইএমএফ মঙ্গলবার বিশ্ব অর্থনীতির গতিপ্রকৃতি নিয়ে সর্বশেষ প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক আউটলুক নামের এ প্রতিবেদনে বাংলাদেশসহ বিশ্বের ১৯৫ টি দেশের অর্থনীতির জন্য ২০২০ এবং ২০২১ সালে মোট দেশজ উৎপাদনের ( জিডিপি) প্রবৃদ্ধি নিয়ে পূর্বাভাস রয়েছে।

এতে বলা হয়, এ বছর বাংলাদেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধি হবে ৩ দশমিক ৮ শতাংশ। আর ২০২১ সালে প্রবৃদ্ধি হবে ৪ দশমিক ৪ শতাংশ। বাংলাদেশের চেয়ে বেশি প্রবৃদ্ধি হবে আফ্রিকার দেশ সাউথ সুদানের ৪ দশমিক ৮ শতাংশ। আইএমএফ ২০২০ সালে বিশ্ব অর্থনীতি ৪ দশমিক ৪ শতাংশ সংকোচন হবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে। তবে ২০২১ সালে বিশ্ব অর্থনীতিতে ৫ দশমিক ২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি হবে বলে মনে করছে সংস্থাটি। করোনার আগের অর্থনীতি ফিওে আসতে অনেক সময় লাগবে বলে আইএমএফের প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো দেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধির হিসাব করে থাকে জুলাই- জুন অর্থবছর ধরে। তবে আইএমএফের এই পূর্বাভাস পঞ্জিকাবর্ষ কেন্দ্রিক। কয়েকদিন আগে বিশ্বব্যাংক বলেছে, চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরে বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি হতে পারে ১ দশমিক ৬ শতাংশ। অন্যদিকে এডিবির পূর্বাভাস হলো ৬ দশমিক ৮ শতাংশ। আর সরকারের লক্ষমাত্রা ৮ দশমিক ২ শতাংশ।


বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top