সিডনী সোমবার, ২১শে জুন ২০২১, ৬ই আষাঢ় ১৪২৮

খেলা হবে : শিবব্র‍ত গুহ


প্রকাশিত:
৬ মে ২০২১ ১৭:২১

আপডেট:
২১ জুন ২০২১ ০৩:৩৫


২০২১ সাল এক যুগসন্ধিক্ষণের বছর হিসেবে চিহ্নিত হয়ে থাকবে আজীবন রাজ্য রাজনীতিতে। এবারের বিধানসভা নির্বাচনে, প্রধান প্রতিপক্ষ ছিল প্রধানত রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস ও দেশের শাসকদল বিজেপি। সংযুক্ত মোর্চা,  অনেক হাঁকডাক পাড়লেও,  তাদের ডাকে রাজ্যবাসী কেউই বিশেষ সাড়া দেয়নি।
তার প্রমাণ মিলেছে,  বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফলে। বামফ্রন্ট ও ভারতের জাতীয় কংগ্রেসের অবস্থা এখন বিপন্ন রাজ্য রাজনীতিতে।
রাজ্যের মানুষ আবার তৃণমূল কংগ্রেসের হাতেই রাজ্যের শাসনভার তুলে দিয়েছেন। যা এক অত্যন্ত ইতিবাচক দিক। গত কয়েক মাস ধরে, তৃণমূল কংগ্রেসের ওপর দিয়ে অনেক ঝড় বয়ে গেছে। এত কিছুর পরেও, তৃণমূল কংগ্রেস বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে, এই রাজ্যের ক্ষমতায় এসেছে। এর পেছনে, প্রধান কারণ হল, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উন্নয়নমূলক সব প্রকল্প। রাজ্যের মানুষ ভরসা রেখেছে উন্নয়নের ওপরেই।
এবারের বিধানসভা নির্বাচনের ক্ষেত্রে, অন্যান্য প্রত্যেক বারের মতোই অনেক শ্লোগান চারিদিকে শোনা গেছে। তার মধ্যে, "বাংলা নিজের মেয়েকে চায়", "হাল ফেরাও লাল ফেরাও", "সোনার বাংলা" গড়ার আওয়াজ প্রভৃতি উল্লেখযোগ্য।
তার মধ্যে, সবাইকে ছাপিয়ে গেছে, সারা রাজ্য জুড়ে, একটাই শ্লোগান, তা কি জানেন আপনারা?  তা হল
"খেলা হবে"। এর জনপ্রিয়তা নিয়ে বলতে গেলে শেষ হবে না। এ এক অসাধারণ শ্লোগান!  যার তুলনাই
হয় না।
সারা রাজ্য জুড়ে আট থেকে আশি -সবার মুখেই এখন একটাই শ্লোগান, ‘খেলা হবে’। যা নিয়ে ইতিমধ্যে রাজ্যের বিরোধী দলগুলি, বারবার আপত্তি জানিয়েছিল। কিন্তু, রাজ্যের সাধারণ মানুষের হৃদয় জয়
করে নিয়েছে খেলা হবে শ্লোগান ও ডিজে গান। কি অসাধারণ গান!  যে গানের তালে তালে নেচেছে অনেকেই। এবারের বিধানসভা নির্বাচনে,  শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত, প্রভাব বিস্তার করেছে
খেলা হবে।
তৃণমূল কংগ্রেসের এই বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারের গান, এখনো অবধি, খুব, খুব জনপ্রিয়। সারা
রাজ্য জুড়ে,  তৃণমূল কংগ্রেসের ভোটপ্রচারে, এই গান খুব খুব শোনা গেছে। তবে, খেলার মাঠেও, এর
প্রভাব লক্ষ্য করা যাচ্ছে।  এমনকি, বিয়েবাড়ির বক্সে এই গান বাজছে।
দেবাংশু ভট্টাচার্য,  হলেন,  তৃণমূল কংগ্রেসের এক যুব নেতা। তিনিই হলেন, এই খেলা হবে, গানের স্রষ্টা।
এই গানকে, কম্পিউটারে মিক্সিং করে, যিনি ইউটিউবে ছাড়েন, তিনি হলেন, মহম্মদ আমিন নামে
এক যুবক। এই ডিজে গান, সৃষ্টি করেছে এক নতুন ইতিহাস। ইতিমধ্যে, ইউটিউবে, ২০ লক্ষ
শ্রোতা, শুনে ফেলেছেন,  ‘খেলা হবে’।
রাজনৈতিক অনেক বিশেষজ্ঞদের মতে, ,যে,  এটা, এমন একটা শ্লোগান,  যা সবার থেকে আলাদা। যা সব বয়সের মানুষকে আকৃষ্ট করেছে। মানুষ এই শ্লোগানকে গ্রহণ করেছে একদম হৃদয় থেকে। এর উন্মাদনা আলাদা, সবার থেকে আলাদা।
এই গানের তালে তাল মিলিয়েছেন সবাই। প্রথম বাংলাদেশের আওয়ামি লিগের নেতা তথা বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জ – এর বিধায়ক, শামিম ওসমানের মুখে, ‘খেলা হবে’, শব্দবন্ধ শোনা গিয়েছিল। সেখান থেকেই,
দেবাংশু ভট্টাচার্য,  খেলা হবে, শ্লোগানকে, গান আকারে সামনে নিয়ে আসেন। যা পায় তুমুল জনপ্রিয়তা।
খেলা হবে - এই শ্লোগান, অনুপ্রেরণার কাজ করেছে, বিধান সভা নির্বাচনে,  তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মীদের হৃদয়ে।  তারা এই গান শুনে হয়েছে উদ্বুদ্ধ।  তাদের মনে জুগিয়েছে সাহস ‘খেলা হবে’।
তবে, একথা ঠিক, যে, রাজ্য বিধান সভা নির্বাচনের হিট শ্লোগান হল, খেলা হবে, খেলা হবে, অবশ্যই খেলা হবে।



শিবব্রত গুহ
কোলকাতা, পশ্চিম বঙ্গ, ভারত

 

এই লেখকের অন্যান্য লেখা



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


Top